লন্ডনে আল্লামা দুবাগী ছাহেব কিবলাহ (রহঃ) এর ১ম বার্ষিক ঈসালে সাওয়াব মাহফিল সম্পন্ন

Published: 14 July 2021, 5:06 PM

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি :

আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন ইসলামী চিন্তাবিদ, মুনাযীরে আযম, বাহরুল উলুম, উস্তাদুল উলামা ওয়াল মুহাদ্দিসীন, শায়খুল হাদীস, মুফতিয়ে আযম, পীরে কামিল, হযরত আল্লামা মুফতি মুজাহিদ উদ্দীন চৌধুরী দুবাগী ছাহেব কিবলাহ (রহ.) এর ১ম বার্ষিক ঈসালে সাওয়াব মাহফিল লন্ডনে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার সকাল ১০টায় মাজার জিয়ারতের মধ্য দিয়ে শুরু হয়, খতমে কুরআন, খতমে খাজেগান, খতমে দালাইলুল খাইরাত ও যিকির মাহফিলের পাশাপাশি স্মৃতিচারণমূলক আলোচনায় অত্যন্ত ভাবগম্ভীর পরিবেশে অতিবাহিত হয় পুরো দিন।

লন্ডনের ঐতিহ্যবাহী ব্রিকলেন জামে মসজিদে আল্লামা দুবাগী (রহঃ) ঈসালে সাওয়াব মাহফিল কমিটির উদ্যোগে আয়োজিত মাহফিলে সভাপতিত্ব করেন তাঁর সুযোগ্য উত্তরসূরী বড় ছাহেবজাদা আল্লামা জিল্লুর রহমান চৌধুরী দুবাগী। মাওলানা ওলিউর রহমান চৌধুরী দুবাগী ও মাওলানা আমিনুল ইসলাম জলঢুপির যৌথ পরিচালনায় শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তিলাওয়াত করেন দুবাগী ছাহেবের ছোট ছাহেবজাদা ক্বারী মাহবুবুর রহমান চৌধুরী। যুক্তরাজ্যের বিভিন্ন শহর থেকে নানা দেশের প্রখ্যাত আলিম উলামা, মুরীদীন, মুহিব্বীন ও সর্বস্তরের জনসাধারণ উপস্থিত ছিলেন। আল্লামা দুবাগী ছাহেব (রহঃ) এর আলোকিত জীবনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন, মিনহাজুল কোরআন ইন্টারন্যাশনাল লন্ডন এর ডাইরেক্টর আল্লামা সাদিক কোরেশী আল-আজহারী, লন্ডন মাজহারুল উলুম মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা এমদাদুর রহমান আল-মাদানী, মুহিউল ইসলাম মসজিদের খতীব আল্লামা শের আহমদ বারকাটি, ওয়াইছ করনি মসজিদের খতীব আল্লামা সৈয়দ তারিক মাসুদ, ফাইযানে ইসলাম জামে মসজিদের খতিব আল্লামা সানাউল্লাহ ছেটি, আল-হীরা মসজিদের খতিব আল্লামা ক্বারী তারিক মাহমুদ,  আল্লামা দুবাগী ছাহেব (রহঃ) এর জামাতা মুফতি সৈয়দ মাহমুদ আলী, ক্রাউন প্রসিকিউশন সার্ভিসের ডিরেক্টর অফ স্ট্রাটেজি এন্ড পলিসি ব্যারিস্টার ফয়সাল খাঁন, যুক্তরাজ্য আঞ্জুমানে আল-ইসলাহর সভাপতি আল্লামা আব্দুল জলিল, লন্ডন দারুল হাদিস লতিফিয়ার সাবেক প্রিন্সিপাল মুফতি ইলিয়াস হোসেন,  ওল্ডহাম মদিনা মসজিদের সাবেক খতিব মাওলানা রফিকুল হক, আছিরখাল মাদ্রাসার সাবেক সুপার মাওলানা আব্দুস সবুর, খেলাফত মজলিসের কেন্দ্রীয় যুগ্ম-মহাসচিব অধ্যাপক মাওলানা আব্দুল কাদির সালেহ, বিশিষ্ট মিডিয়া ব্যক্তিত্ব ইকরা টিভি লন্ডনের আলোচক ও ‘জামেয়াতুল খাইর আল ইসলামিয়া সিলেট’ এর প্রতিষ্ঠাতা মুফতি আব্দুল মুন্তাকিম,   লতিফিয়া উলামা সোসাইটির সভাপতি মাওলানা শিহাব উদ্দিন, ব্রিকলেন জামে মসজিদের ইমাম ও খতীব মাওলানা নজরুল ইসলাম,  নূরে মদীনা ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান মাওলানা শফিকুর রহমান বিপ্লবী, লেস্টার দারুস সালাম মসজিদের ইমাম ও খতিব  হাফিজ মাওলানা আব্দুল জলিল, বার্মিংহাম ডারলিস্টন সুন্নি জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব অ্যাডভোকেট মাওলানা সালেহ আহমদ মনসুরী, ওল্ডহাম শাহ পরান মসজিদের ইমাম ও খতিব মাওলানা ফখরুল ইসলাম,  জামিয়াতুল উম্মাহ লন্ডনের সিনিয়র  উস্তাদ মাওলানা মুমিনুল ইসলাম ফারুকী, মাওলানা রফিক আহমদ কানাইঘাটি, ক্বারী মাওলানা ইউনুস আহমদ,  লন্ডন আল-ইসলাহ ডিভিশনের সহ-সভাপতি মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, হযরত আল্লামা দুবাগী ছাহেব (রহ) আধ্যাত্মিক জগতের এক উজ্জ্বল নক্ষত্র ছিলেন। প্রত্যেক মনীষীই বিশেষ কোন গুণ ও বৈশিষ্ট্যের কারণে খ্যাতি লাভ করেন। এজন্যই তিনি দুনিয়া হতে বিদায় নিলে তাঁর মত আরেকজন পাওয়া যায় না। ‘‘প্রত্যেক ওলীর আলাদা স্থান থাকে”। কিন্তু আল্লাহ তা’আলা এ ওলীর মাঝে ‘‘জামেইয়্যত” তথা অসংখ্য শান ও গুণের অপূর্ব সমন্বয় ঘটিয়েছিলেন। তাঁর মত একাধারে একজন বাহ্যিক ও অভ্যন্তরীন সৌন্দর্যে সুসজ্জিত কামিল-মুকাম্মাল, সচ্চরিত্রবান, তীক্ষ্ণ মেধাসম্পন্ন, প্রখ্যাত সাহিত্যিক, লেখক ও গবেষক, বিজ্ঞ ফকীহ, দক্ষ মুহাদ্দিস, মুজাব্বিদ ক্বারী, বিচক্ষণ সংগঠক, খাঁটি পীর, সাহসী মুজাহিদ, দরদী দাঈ ও ওয়াইজ ব্যক্তির দৃষ্টান্ত সত্যিই বিরল। মুত্তাকি ও পরহেজগারের নমুনা কেহ দেখতে চাইলে সে যেন দেখে নেন এই আল্লামা দুবাগী ছাহেব কিবলাহ (রহ.)কে। সারা জীবন যিনি আল্লাহর স্বরণ ও দ্বীনের ফিকিরে কাটিয়েছেন। ইন্তিকালের পূর্বের দিনগুলোও যিনি যিকির, নামায ও দ্বীনের তা’লীমের পরিবেশে কাটিয়েছেন। এমনকি হাসপাতালে মৃত্যুশয্যায় ও তিনি তাঁর মাওলাকে ভুলেননি। ইন্তিকালের পূর্বক্ষণে ও তিনি সূরা ইয়াসিন পড়তে ছিলেন।

তিনি ছিলেন তাঁর মুর্শিদ শামসুল উলামা হযরত আল্লামা ছাহেব কিবলাহ ফুলতলী (রহঃ) এর প্রতিকৃতি। একজন কামিল বা হক্কানী পীরের মধ্যে যেসব গুন থাকা আবশ্যক, তাঁর মধ্যে খোদার ফযলে সবগুলোই ছিল। মানুষ অন্তরের অন্তরস্তল হতে তাঁকে শ্রদ্ধা করত। বস্তুত: তিনি ছিলেন “সর্বজন শ্রদ্ধেয়” কথাটির যোগ্য পাত্র। দল-মত, ধর্ম-বর্ণ, আলেম-আওয়াম, ব্যবসায়ী-শ্রমিক এমনকি বড় বড় সরকারী অফিসার, রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ নির্বিশেষে সবস্তরের মানুষের কাছে ছিল তাঁর অতুলনীয় গ্রহণ যোগ্যতা। সবখানেই তিনি ছিলেন একান্ত শ্রদ্ধার পাত্র।

তিনি ছিলেন আম খাছ সবার দোয়ার কেন্দ্রস্থল। যে কোন বিপদে-আপদে যখন মানুষ নিরুপায় হয়ে যেত, তখন আল্লামা দুবাগী ছাহেবের কাছে দোয়ার জন্য হাজির হত। কাছ দূর থেকে মানুষ দোয়ার জন্য তাঁর কাছে আসত। ব্রিটেনে অনেক দুরে দুরে বড় বড় মাহফিলে তাঁকে দোয়ার জন্য অনুরোধ করে নেওয়া হত।

আল্লামা দুবাগী ছাহেব (রহঃ) এর ইন্তেকালের পর তাঁর প্রতি মানুষের শ্রদ্ধার মাত্রা বিশেষভাবে দৃশ্যমান হয়। বিশ্বের বুকে সর্বস্তরে দলমত নির্বিশেষে শোকের ছায়া নেমে আসে। ইন্তেকালের খবর ইলেকট্রিক মিডিয়া, প্রিন্ট মিডিয়া, সোস্যাল মিডিয়া ও জাতীয় মিডিয়াসমূহ সকল পত্র-পত্রিকার অনলাইন সংস্করণ ও আঞ্চলিক পত্রিকায় গুরুত্বের সাথে প্রচার করেছে।

সর্বস্তরের জনগণের পক্ষ থেকে শোকাতুর হৃদয়ের অভিব্যক্তি আসতে থাকে। আন্তর্জাতিক অঙ্গনে ইয়ামন, সিরিয়া, জর্দান, মিশর, সৌদি আরব, কুয়েত, ডুবাই, আমেরিকা, ইউরোপ, কানাডা, আফ্রিকা, ভারত, পাকিস্তান, মালয়েশিয়া ইত্যাদি থেকে আসতে থাকে শোকবার্তা। আর দোয়া-দুরুদ শুরু হয় সকল মসজিদ-মাদরাসায়। অসংখ্য কুরআন খতম হয়।

তাঁর ইন্তেকালে, বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে খ্যাতনামা ওলামায়ে কেরাম ও পীর মাশায়েখ সহ বাংলাদেশের মহামান্য রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ, লন্ডনে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাই কমিশনার সাইদা মুনা তাসলিম, ব্রিটিশ এমপি এবং বাংলাদেশের অনেক এমপি ও মন্ত্রী শোক বার্তা প্রেরণ করেছেন। সারা বৎসর পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এবং বাংলাদেশে শহরে ও গ্রামে গঞ্জে বিশ্বব্যাপী করোনাকালীন সময়ও তাঁর জন্য দোয়া ও স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে এবং হচ্ছে।

বক্তারা আরো বলেনঃ আল্লামা দুবাগী ছাহেব (রহ.) তাঁর মৃত্যুর মধ্য দিয়ে মোটেই শেষ হয়ে যাননি। কখনো ও যাবেনও না। আল্লাহর মহিমায় তিনি তাঁর অবিস্মরণীয় কীর্তির মধ্য দিয়ে চির জাগরুক থাকবেন। যত দিন তাঁর তৈরী মসজিদ, মাদ্রাসা ও লেখনী থাকবে। ততদিন ইট পাথর থেকে শুরু করে প্রতিটি ধুলি কনা তাঁর বিরহে কাঁদবে স্মরণ করবে তাঁর মেহনত।

অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন পপলার সেন্ট্রাল মসজিদের খতিব হাফিজ আব্দুস শহীদ, মুফতি এহসান আহমদ, মুফতি আশরাফুর রহমান, লতিফিয়া উলামা সোসাইটির সেক্রেটারি মাওলানা ফরিদ আহমদ চৌধুরী, লন্ডন আল-ইসলাহ ডিভিশনের সভাপতি হাফিজ মাওলানা কয়েছুজ্জামান, লন্ডন দারুল হাদিস লতিফিয়ার ভাইস প্রিন্সিপাল মাওলানা ইমরান হোসেন, মাওলানা আব্দুল আউয়াল হেলাল, মাওলানা মারুফ আহমদ, মাওলানা হাবিবুর রহমান, মাওলানা রুহুল আমিন (লুটন), হাফিজ নাজিম উদ্দিন, হাফিজ আনহার আহমদ, হাফিজ আব্দুল্লাহ, হাফিজ মতিউল হক, হাফিজ সাজ্জাদুর রহমান, ক্বারী গুলাম আজম, গ্রীনিচ বিশ্ববিদ্যালয়ের  প্রফেসর ডঃ আব্দুল আলী,  নিউক্রস মসজিদের প্রেসিডেন্ট আলহাজ সেলিম রহমান, বিশিষ্ট সংবাদিক ও কমিউনিটি নেতা আবু তাহের চৌধুরী, ইলফোর্ড ইসলামিক সেন্টারের চেয়ারম্যান আলহাজ গজানফর আলী, মুহিউল ইসলাম মসজিদের চেয়ারম্যান জনাব আব্বাসী, শেডওয়েল জামে মসজিদের চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার গউস মিয়া, বিয়ানীবাজার উপজেলা প্রগতি এডুকেশন ট্রাস্টের সভাপতি হাবিবুর রহমান(ময়না), বিয়ানীবাজার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের সভাপতি আব্দুল করিম নাজিম, নর্থাম্পটন বাংলাদেশ এসোসিয়েশনের ট্রাস্টি মুহাম্মদ আব্দুর রউফ, প্রফেসর মিসবাহ উদ্দিন কামাল (ট্রেজারার, বাংলাদেশ টিচার্স এসোসিয়েশন, ইউকে), বিয়ানী বাজার জনকল্যান সমিতির সভাপতি লুৎফুর রহমান সায়াদ প্রমুখ।

সভাপতির বক্তব্যে আল্লামা জিল্লুর রহমান চৌধুরী দুবাগী উপস্থিত উলামায়ে কেরাম, সুধী মন্ডলী, প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া, ব্রিকলেন জামে মসজিদ ব্যবস্থাপনা কমিটি, স্বেচ্ছাসেবক, বিশেষকরে যুক্তরাজ্যের বিভিন্ন শহর থেকে আগত মেহমানদেরকে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন যে তাঁরা এ মোবারক মাহফিলে উপস্থিত হয়ে মাহফিলকে সাফল্য মন্ডিত করেছেন।

আল্লামা দুবাগী সাহেব (রহঃ)’র ঈসালে সাওয়াব উপলক্ষে খতমে কোরআন করেছেন ইউকের বিভিন্ন শহরে এবং দুবাগী সাহেবের দরজা বুলন্দির জন্য দোয়া চেয়েছেন তম্মন্ধে উল্লেখ্যোগ্য: লেস্টার, বার্মিংহাম, লুটন, নর্থাম্পটন, ওল্ডহাম,  ম্যানচেস্টার, হাইড, কিথলী, কভেন্ট্রি, সাউথাম্পটন, ব্লকবার্ন, হাজলিংডন এবং লন্ডন মহানগর থেকে অসংখ্য জন। বিভিন্ন হোয়াটসআপ গ্রুপ: দারুল হাদিস লতিফিয়াহ ম্যানেজমেন্ট বোর্ড গ্রুপ, এলএফসি গ্রুপ, সৎপুর দারুল হাদিস ছাত্র পরিষদ গ্রুপ, লন্ডন আল-ইসলাহ ডিভিশন গ্রুপ এবং বাংলাদেশে বিভিন্ন জায়গায় খতমে কোরআন ও সাবিনা খতম এবং মিলাদ শরীফ পড়েছেন। দুবাগী সাহেবের পরিবার বছরজুড়ে ১২৭ খতমে কোরআন করেছেন। অসংখ্য  খতমে ইয়াসিন শরীফ ও মিলাদ শরীফ পড়েছেন। এ মাহফিলে  এগুলোর সম্মিলিত দোয়া হয়েছে ।

সর্বশেষে এ মহতী অনুষ্ঠানে মীলাদ পাঠান্তে দোয়া পরিচালনা করেন দুবাগী ছাহেবের সুযোগ্য বড় ছাহেবজাদা আল্লামা জিল্লুর রহমান চৌধুরী দুবাগী।

  • 34
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    34
    Shares