মীমাংসার নামে ধর্ষিতাকে আবারও গণধর্ষণ

Published: 15 October 2020, 1:25 PM

বিশেষ সংবাদদাতা : নারায়ণগঞ্জের নৈকাহন বাজারের একটি মাছের দোকানের ভেতর ধর্ষণের শিকার হন দুই সন্তানের জননী এক বিধবা নারী। পরে বিষয়টি মীমাংসা করার নামে আরও দুই দফা গণধর্ষণ করেছে ৫ জন ব্যক্তি।

এ ঘটনায় ওই নারী আলী আকবর নামে এক ব্যক্তিকে প্রধান আসামি করে মোট ৬ জনের বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা দায়ের করেছেন।

এর প্রেক্ষিতে পুলিশ আজ বৃহস্পতিবার সকালে অভিযান চালিয়ে মামলার প্রধান আসামি আলী আকবরকে গ্রেফতার করেছে। তিনি একই এলাকার মৃত বছির উদ্দিনের ছেলে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ৭ অক্টোবর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার নৈকাহন বাজারের আনিসের মার্কেটে ওষুধ কিনতে জান দুই সন্তানের জননী ওই বিধবা নারী। এ সময় আলী আকবর তাকে ডাক দিয়ে বাজারের মাছের দোকানে নিয়ে যায়। পরে দোকানের সাটার বন্ধ করে ধর্ষণ করে।

ওই নারী দোকান থেকে বের হতেই এলাকার মৃত আব্দুল মালেকের ছেলে মোস্তফা (৫৫) ও আনারুল (৪০) লিটন (৩২) ঘটনা জানতে চান। তারপর আপোষ করে দেয়ার কথা বলে লিটনের পুকুর পাড়ে নিয়ে যায় ওই নারীকে। একই রাত সাড়ে ৮টায় তিনজন পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

পরবর্তীতে লিটন ফোন করে শাহীন (৩২) ও তরিকুল (৩৪) ডেকে আনেন। তারা ওই নারীকে জোর করে রাত সাড়ে ১০টায় একই এলাকার আলী হোসেনের নির্মাণাধীন ভবনের ছাদে নিয়ে ধর্ষণ করে।

আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বিধবা নারীকে গণধর্ষণের ঘটনায় ৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। প্রধান আসামি আলী আকবরকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।