স্বামীকে আটকে রেখে গৃহবধূকে ধর্ষণ

Published: 8 November 2020, 7:52 AM

বিশেষ সংবাদদাতা : নরসিংদীর পলাশে স্বামীকে আটকে রেখে এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে ঘোড়াশাল ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের ভাই পাপ্পু খন্দকারসহ ২জনের বিরুদ্ধে।

এ ঘটনায় শনিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে পলাশ থানায় একটি মামলা দায়ে করেছে নির্যাতনের শিকার ওই গৃহবধূর পরিবার। আসামীরা পলাতক রয়েছে বলে পুলিশ জানায়।
পলাশ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নাসির উদ্দিন জানান, শনিবার রাতে ধর্ষণের অভিযোগ নিয়ে ওই গৃহবধূর পরিবারের লোকজন থানায় এসেছেন। তাদের কথা শোনা হয়। পরবর্তীতে অভিযোগের প্রেক্ষিতে থানায় মামলা রুজু করা হয়। আসামীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা করা হচ্ছে। ভিকটিমকে মেডিকেল পরিক্ষার জন্য আজ রোববার হাসপাতালে প্রেরণ করা হবে।
মামলায় সংক্ষিপ্ত বিরনে জানা যায়, ঘোড়াশাল পৌরসভার ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের ভাই অভিযুক্ত পাপ্পু খন্দকারের গাড়ির চালকের তার মাসিক বেতন দেয়ার কথা ছিল।

কিন্তু বেতনের টাকা চালক নষ্ট করে ফেলবে বলে এই অজুহাত দেখিয়ে চালকের স্ত্রীকে নিয়ে আসতে বলেন পাপ্পু খন্দকার। গত ২৬ অক্টোবরে পাপ্পু খন্দকারসহ তার অপর সহযোগী গাড়ী চালককে আটকে রেখে তার স্ত্রীকে গাড়ি ভিতরে পলাশ বিআরডিসি মোড়ে পাপ্পু ধর্ষণ করে।