ট্রাম্পকে পরাজিত মনে করেন না প্রথম স্ত্রী ইভানা

Published: 10 November 2020, 7:06 AM

পোস্ট ডেস্ক : নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পকে পরাজিত মনে করেন না তার প্রথম স্ত্রী ইভানা জেলনিকোভা। তিনি পরাজিত হতে পারেন বলেও তিনি মনে করেন না।

তাই ট্রাম্প লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন বলেই মতামত দিয়েছেন ইভানা। উল্লেখ্য, ১৯৭৭ সালে প্রথম স্ত্রী হিসেবে চেক প্রজাতন্ত্রে জন্মগ্রহণকারী ইভানা জেলনিকোভাকে বিয়ে করেন ট্রাম্প। তাদের ঔরসে জন্ম হয় তার বড় তিন সন্তান এরিক, ডনাল্ড ট্রাম্প জুনিয়র এবং ইভানকা’র। এরপর ১৯৯২ সালে তাদের বিচ্ছেদ ঘটে। এরপর মারলা ম্যাপলস নামে এক নারীকে বিয়ে করেন ট্রাম্প। সেই বিয়েও টেকেনি।

১৯৯৯ সালে তাদের বিচ্ছেদ ঘটে। এর ৬ বছর পর তিনি বিয়ে করেন স্লোভেনিয়ায় জন্ম নেয়া মডেল মেলানিয়া ট্রাম্পকে। বর্তমানে মেলানিয়া ট্রাম্পই যুক্তরাষ্ট্রের ফার্স্টলেডি। ওদিকে ট্রাম্পের নির্বাচনী ফল নিয়ে চারদিকে যখন নানা কথা তখন মুখ খুলেছেন তার প্রথম স্ত্রী। এ খবর দিয়েছে অনলাইন ইউএসএ টুডে।
৩রা নভেম্বরে এবার যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। কিন্তু মেইলে দেয়া ভোট গণনা করতে নির্বাচন সংশ্লিষ্টদের বেশ কয়েকদিন সময় লেগে যায়। এতে এক অনিশ্চয়তায় কাটে তিন থেকে চারটি দিন। অবশেষে গত শনিবার প্রয়োজনীয় ২৭০ ইলেকটোরাল কলেজ ভোটের বেশি নিশ্চিত হয়ে যায় জো বাইডেনের। ফলে তিনিই হতে যাচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট। এ নিয়ে সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের পিপল ম্যাগাজিনের সঙ্গে কথা বলেছেন ট্রাম্পের প্রথম স্ত্রী ইভানা। তিনি বলেছেন, আমি চাই সবকিছুর সমাধান হয়ে যাক। তাতে ফল যা-ই হোক না কেন। আমি এর কোনো পরোয়া করি না। তিনি বিশ্বাস করেন নির্বাচনের ফল অনুকূলে না গেলেও স্বাভাবিক থাকবেন ট্রাম্প। তার ভাষায়, তিনি পরাজিত নন। তিনি পরাজয় পছন্দ করেন না। সন্তানদের বিষয়ে তিনি বলেন, আমি চাই তারা স্বাভাবিক জীবন যাপন করুক। ওয়াশিংটনেই হতে হবে এমন না, নিউ ইয়র্কে হতে হবে এমন না, যেখানেই থাকুক তারা যেন স্বাভাবিক জীবন পায়। আমি নিশ্চিত নই, তারা এখন কেমন আছে।