ট্রাম্প টিমের আইনি লড়াই শুরু

Published: 10 November 2020, 7:16 AM

পোস্ট ডেস্ক :  আইনি লড়াই সবে শুরু হয়েছে বলে ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের মিত্ররা। তারা প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিজয়ী জো বাইডেনের বিরুদ্ধে আইনি লড়াই অব্যাহত রাখার প্রত্যয় ঘোষণা করেছে।

হোয়াইট হাউজের প্রেস সেক্রেটারি কেলি ম্যাকইনানি সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, নির্বাচন এখনও শেষ হয়ে যায়নি। এখনও অনেক দূরে নির্বাচন। এ খবর দিয়ে অনলাইন বিবিসি বলেছে, কোনো রকম প্রমাণ দিতে না পারলেও ম্যাকইনানি নির্বাচনে বিস্তর দুর্নীতির অভিযোগ আনেন। উল্লেখ্য, এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত নির্বাচনে পরাজয় স্বীকার করেননি রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প। তাকে সাবেক রিপাকালিকান প্রেসিডেন্ট ডর্জ ডব্লিউ বুশ পর্যন্ত পরাজয় স্বীকার করে নিতে আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি একই সঙ্গে অভিনন্দন জানিয়েছেন নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনকে।

কিন্তু এসব আহ্বানে কান দিতে নারাজ ট্রাম্প। শনিবার মিডিয়ার প্রজেকশনে বলা হতে থাকে জো বাইডেন গুরুত্বপূর্ণ রাজ্য পেনসিলভ্যানিয়াতে জয় পেয়েছেন। এর মধ্য দিয়ে তিনি হোয়াইট হাউজের টিকেট নিশ্চিত করেছেন। এরপর থেকেই তিনি ক্ষমতা বুঝে নেয়া এবং ক্ষমতায় গিয়ে কিভাবে সরকার পরিচালনা করবেন তা নিয়ে কাজ শুরু করেছেন।
ওদিকে আবারো সোমবার টুইটারে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প নির্বাচনের ফল নিয়ে আপত্তি তুলেছেন। তিনি ভোটে অচিন্তনীয় এবং অবৈধ কর্মকা-ের অভিযোগ উত্থাপন করেছেন। যদিও এর পক্ষে কোনো প্রমাণ তিনি দিতে পারেন নি। তবে জেনারেল সার্ভিসেস এডমিনিস্ট্রেশন এরই মধ্যে আনুষ্ঠানিকভাবে ক্ষমতা বুঝে নেয়ার প্রক্রিয়া শুরু করতে অনুমতি দিয়েছে বাইডেনকে। এ অবস্থায় ট্রাম্প প্রশাসন যদি অব্যাহতভাবে তাদের হস্তক্ষেপ বজায় রাখে তাহলে আইনগত পদক্ষেপ বাইডেন টিমও বিবেচনা করছে বলে রিপোর্ট করেছে সিবিএস নিউজ। হোয়াইট হাউজের সাংবাদিকরা বলছেন, জানুয়ারিতে সরকারের পদ থেকে সরে যেতে অনীহা প্রকাশ করেছেন ট্রাম্প। তবে আবার ২০২৪ সালে হোয়াইট হাউজের দৌড়ে থাকার কথা এরই মধ্যে ট্রাম্প বিবেচনা করছেন বলে আলোচনা আছে।
এ অবস্থায় সোমবার সংবাদ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের মুখপাত্র ও রিপাবলিকান নেতা ম্যাকইনানি আবারও নির্বাচনে দুর্নীতির অভিযোগ এনেছেন প্রমাণ ছাড়া। এ সময় তিনি এ অভিযোগ তদন্তের জন্য সাংবাদিকদের সহযোগিতা প্রত্যাশা করেন। আগে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের প্রিয় চ্যানেল ছিল ফক্স নিউজ। তারা তথ্যপ্রমাণের ঘাটতির কথা উল্লেখ করে এসব ইভেন্ট কভার করা থেকে দূরে ছিল। ম্যাকইনানি বলেছেন, আমরা এরই মধ্যে যথার্থতা এবং প্রকৃত ভোট গণনা প্রক্রিয়া শুরু করেছি। তার অভিযোগ পেনসিলভ্যানিয়ার ফিলাডেলফিয়া শহরে ভোট গণনায় রিপাবলিকান পর্যবেক্ষকদের পর্যাপ্ত সুবিধা দেয়া হয়নি। কিন্তু ফিলাডেলফিয়া ইনকুইরার-এর মতে, রিপাবলিকান এবং ডেমোক্রেট দলের নির্বাচন পর্যবেক্ষকদের ভোট গণনার টেবিল থেকে ১৩ থেকে ১০০ ফুট দূরত্বে রাখা হয়েছিল।